বালুটিলা মোহাম্মদপুর সড়কের বেহাল দশা,দেখার কেউ নেই!

প্রকাশিত: ৮:২৭ অপরাহ্ণ, মে ৩১, ২০২০

বালুটিলা মোহাম্মদপুর সড়কের বেহাল দশা,দেখার কেউ নেই!

আল আমিন পাঠান:

বলছি, ফটিকছড়ি ও মীরসরাই উপজেলার মধ্যবর্তী স্থানে অবস্থিত দাতঁমারা ইউপির বালুটিলা আজিজিয়া মাদ্রাসা সড়কটির কথা। যা “মাদ্রাসা রোড” নামেও পরিচিত।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, আশেপাশের অন্য সকল গ্রাম্য রাস্তা গুলো কাঁচা থেকে পাঁকা হলেও বহু বছর ধরে অজানা কারনে এই সড়কটি অবহেলিত।
অনেকেই এর কারণ হিসেবে বর্ষার মৌসুমে পাহাড়ের জলপ্রপাত কে ও বালি বোঝাই ট্রাক-কে দায়ী করেছেন।
জানা যায় মোহাম্মদপুর গ্রামে প্রায় পাঁচশ পরিবার বসবাস করে এবং তাদের যাতায়াতের একমাত্র মাধ্যম হিসেবে এ রাস্তা ব্যবহার করা হয়। মাদ্রাসা ও স্কুল-কলেজে পড়ুয়া অসংখ্য শিক্ষার্থী বর্ষার মৌসুমে তাদের প্রতিষ্ঠানে যেতে পারে না।যে কয়েকজন যাওয়ার চেষ্টা করে তাদের বিভিন্ন ভোগান্তি উপেক্ষা করে যেতে হয়। সাধারণ মানুষের চলাচল করা খুবই দূরহ ও কষ্টসাধ্য হয়ে পড়ে।
এছাড়াও পাহাড়ী বন্যায় বাঁধ ভেঙে যাওয়ার ফলে প্রতি বছর রাস্তার দু’পাশের ফসলি জমির ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়। যার ফলশ্রুতিতে কৃষকেরা হুমকির সম্মুখীন হন এবং ক্ষয়ক্ষতি পোষাতে ন তাদের ঋণ গ্রহণ করতে হয়। অনবরত প্রতি বছর এমন পরিস্থিতির শিকার হয় বলে তাদের আর ঋণ পরিশোধ করা হয়ে উঠে না।অনাহারে-অর্ধাহরে তাদের জীবন অতিবাহিত করতে হয় ।
এমতাবস্থায় স্থানীয় জনসাধারণ কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করছেন।

অনুসন্ধানে বেরিয়ে আসে, দুই উপজেলার সীমান্তবর্তী হওয়ায় মীরসরাই প্রতিনিধি চেয়ে থাকে ফটিকছড়ি প্রতিনিধিদের দিকে আর ফটিকছড়ির প্রতিনিধিরা চেয়ে থাকে মীরসরাই প্রতিনিধিদের দিকে। যার ফলে উভয় দিকের দায়িত্বহীনতার ফলশ্রুতিতে এ রাস্তা সর্ম্পকে আমরা অনেকেই অবগত না।

স্থানীয় জনগণকে অতিদ্রুত বড় ধরনের ক্ষয়ক্ষতি থেকে বাঁচাতে জনপ্রতিনিধি ও রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গের এখনই এগিয়ে আসা জরুরি বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

Share via
Copy link
Powered by Social Snap